শনিবার, ০১ অক্টোবর ২০২২, ০৩:০৭ অপরাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ :
বাগমারার রামরামা বরজপাড়া থেকে কুখ্যাত মাদক ব্যাবসায়ী আনোয়ার ৫১৫ পিছ ইযাবা সহ পুলিশের হাতে আটক আমতলী সাংবাদিক ক্লাব ও উপজেলা প্রেস ক্লাবের যৌথ সমন্বয় সভা অনুষ্ঠিত চারঘাটে ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীদের ধর্মীয় গীর্জা নির্মান প্রকল্পের শুভ উদ্বোধন বাঘায় বিট পুলিশিং সমাবেশ অনুষ্ঠিত আরএমপি কর্ণহার থানা এর উদ্দ‍্যোগে শারদীয় দূর্গাপূজার সম্প্রতি সমাবেশ অনুষ্ঠিত রাজশাহীতে চাকরির আশায় যুবক নিঃশ্ব প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ ও ব্যাখ্যা রাজশাহীতে চাকরি ছাড়ার ১ বছর পরে মামলা করে অর্থ দাবি নাসিরনগর দুর্গাপূজা উপলক্ষে জি,আর(চাল) বিতরণ চারঘাটে প্রতিমায় রং তুলির আচঁড়ে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন কারিগররা তিতাসে খাদ্যবান্ধব কর্মসূচির ১৫ টাকা কেজি দরে চাউল বিতরণে অনিয়ম
আত্রাইয়ে হতদরিদ্রকে মারপিটের অভিযোগ \ চেয়ারম্যান-মেম্বার ও ডিলারসহ সাতজনের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের

আত্রাইয়ে হতদরিদ্রকে মারপিটের অভিযোগ \ চেয়ারম্যান-মেম্বার ও ডিলারসহ সাতজনের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের

আত্রাই উপজেলা প্রতিনিধিঃ নওগাঁর আত্রাইয়ে খাদ্যবান্ধ কর্মসূচীর চাল নিতে গিয়ে ডিলারের সাথে দ্বন্দ্বের জের ধরে সালেক হোসেন (৩৫) নামে এক হতদরিদ্রকে বাড়ী থেকে ডেকে এনে মারপিটের অভিযোগ ওঠেছে। এতে আহত হয়ে আত্রাই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি রয়েছে সালেক হোসেন। আহত সালেক উপজেলার মির্জাপুর গ্রামের মৃত শাহাদৎ হোসেনের ছেলে।এঘটনায় মঙ্গলবার দুপুরে সাহাগোলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান-মেম্বার ও ডিলারসহ সাত জনের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

ভুক্তভোগী সালেক হোসেন বলেন,সোমবার দুপুরে সরকারের খাদ্য বান্ধব কর্মসূচীর ১৫ টাকা কেজি দরের চাল নেয়ার জন্য ভবানীপুর বাজারে ডিলারের ঘরে যান। এসময় লাইনে দ্বাড়ানো একজন মহিলা চাল নিতে এক হাজার টাকার নোট বের করে দেয়। এতে ডিলার ওই মহিলাকে ভাংতি টাকা দিতে বলেন। ওই সময় ডিলারদের কাছে কেন ভাংতি টাকা নেই এমন মন্তব্য করলে ডিলার ও তার লোকজন ক্ষিপ্ত হয়ে সালেককে মারপিট করে বের করে দেয়। পরে চাল না নিয়েই সালেক বাড়ীতে ফিরে যায়। কিছু পর স্থানীয় মেম্বার শাহাদাৎ হোসেনসহ কয়েকজন তার বাড়ী গিয়ে ডেকে ভবানীপুর বাজারে সোনালী ব্যাংকের নিচে আনলে চেয়ারম্যান মামুনুর রশিদসহ কয়েকজন তাকে বঁাশের লাঠি দিয়ে মারপিট করে জখম করে। সালেক দাবি করে আরো বলেন,তৎক্ষনাৎ চিকিৎসা নিতে যেতে চাইলে চেয়ারম্যান ও তার লোকজন নানান ভাবে হুমকি দিয়ে চিকিৎসা নিতে দেয়নি। পরে রাত অনুমান সাড়ে ১০টা নাগাদ আত্রাই উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হন। এঘটনায় সালেকের মা সহিদা বেওয়া সুষ্ঠু বিচারের আসায় বাদী হয়ে চেয়ারম্যান,মেম্বার,ডিলারসহ সাত জনের বিরুদ্ধে মঙ্গলবার দুপুরে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।
ডিলার আব্দুর রশিদ বলেন,সালেক চাল নিতে এসে ভাংতি টাকাকে কেন্দ্র করে নানান অশ্লীল ভাষায় গালা-গালি করছিল। এসময় গোলমাল থামাতে তাকে ধাক্কা দিয়ে বের করে দিয়েছি। পরে চেয়ারম্যান তাকে ডেকে এনে চর থাপ্পর মেরে সমাধান করে দিয়েছে।
স্থানীয় মেম্বার শাহাদাৎ হোসেন বলেন,চাল নিতে গিয়ে ডিলারের সাথে যে ঝামেলা হয়েছিল তা সমাধানের জন্য সালেককে বাড়ী থেকে ডেকে এনেছিলাম। পরে চেয়ারম্যান তাকে চর থাপ্পর দিয়ে সমাধান করে দিয়েছে।

অভিযোগ অস্বীকার করে চেয়ারম্যান মামুনুর রশিদ বলেন,ডিলারের ঘরে চাল নিতে গিয়ে হট্রগোল করছিল সালেক। আমরা শুধু হট্রগোল থেমে দিয়ে সমাধান করে দিয়েছি। সেখানে মারপিটের কোন ঘটনা ঘটেনি।

আত্রাই থানার ওসি তারেকুর রহমান সরকার বলেন,মারপিটের ঘটনায় একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত সাপেক্ষে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

 

ফেসবুকে সংবাদটি শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2017 আলোকিত ভোরের বার্তা
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com