শুক্রবার, ০৯ ডিসেম্বর ২০২২, ১০:২০ অপরাহ্ন

সর্বশেষ সংবাদ :
বিএনপি জামাতের সন্ত্রাস ও নৈরাজ্যের প্রতিবাদে যুবলীগের বিভিন্ন কর্মসূচি ঘোষণা বাগমারায় বেগম রোকেয়া দিবস ও আন্তর্জাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ  পালিত তিতাসের পীর শাহবাজ ক্রিকেট টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা অনুষ্ঠিত তিতাসে আন্তর্জাতিক দুর্ণীতি বিরোধী দিবস পালিত নাসিরনগরে” আন্তর্জাতিক দুর্নীতি বিরোধী দিবস” পালিত নাসিরনগরে “আন্তর্জাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ ও বেগম রোকেয়া দিবস” উদযাপন ২০২৪ সালের প্রথম সপ্তাহে নির্বাচন সকল জীবন বীমা কোম্পানিতে ‘বঙ্গবন্ধু শিক্ষা বীমা’ চালুর নির্দেশ ৭ বছর পর দেশের মাটিতে সিরিজ জয় ৩ ইসলামী ব্যাংকের কেলেঙ্কারি তদন্ত করবে দুদক
আইকনিক ব্যক্তিত্ব ওসি সাজ্জাদ হোসেন, হলেন জেলার ষষ্ঠবারের মতো শ্রেষ্ঠ

আইকনিক ব্যক্তিত্ব ওসি সাজ্জাদ হোসেন, হলেন জেলার ষষ্ঠবারের মতো শ্রেষ্ঠ

বাঘা উপজেলা প্রতিনিধি: রাজশাহীর বাঘা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি)মোঃ সাজ্জাদ হোসেন সাজু ব্যক্তিগত নানা উদ্যোগের কারণে জনগণের আস্থা অর্জনে সক্ষম হয়েছেন। এছাড়াও তিনি চলতি মাসে ষষ্ঠ বারের মতো রাজশাহী জেলার শ্রেষ্ঠ অফিসার ইনচার্জ নির্বাচিত হলেন । এর আগে তিনি রাজশাহী রেঞ্জের একবার ও জেলায় পাঁচবার শ্রেষ্ঠ ওসি নির্বাচিত হয়েছিলেন।

বুধবার ১৯ অক্টোবর জেলা পুলিশ লাইনের মাসিক কল্যান সভায় পুলিশ সুপার জনাব এবিএম মাসুদ হোসেন বিপিএম (বার) জেলার শ্রেষ্ঠ অফিসার ইনচার্জ হিসেবে ষষ্ঠবারের মতো
সন্মাননা স্বারক ও কেস্ট তুলে দেন ওসি সাজ্জাদ হোসেন এর হাতে।

ওসি সাজ্জাদ হোসেন নিজেকে জনগনের একজন সেবক হিসেবে পরিচয় দেন । অফিস কক্ষ ছাড়া, যেকোন অনুষ্ঠানে পাশে বসে সবার সঙ্গে কথা বলেন ও শুনেন তিনি।

স্থানীয় সূত্রে , ওসি সাজ্জাদ হোসেন ২০২১ সালের জুলাই মাসে বাঘা থানায় যোগদান করেন। এর পরপরই তিনি জনস্বার্থ ও মানবিক সংশ্লিষ্ট বেশ কিছু কাজ করেছেন। যা ইতোমধ্যেই স্থানীয় জনগণের কাছে প্রশংসিত হয়েছে। ২০০১ সাল থেকেই পুলিশ বিভাগে চাকরি জীবনে উজ্জ্বল সফলতা ও সততার সঙ্গে কাজ করে আসছেন তিনি।

বাঘা থানায় যোগদানের পর থেকে নিজ কর্মগুণে সাধারণ মানুষের মন জয় করেছেন ওসি সাজ্জাদ হোসেন । বাঘা থানা এলাকা থেকে টাউট-বাটপার ও দালালদের দৌরাত্ম্য বন্ধ করেছেন। পুলিশি সেবাগ্রহীতাদের এখন আর দুর্ভোগ পোহাতে হয় না। মাদক, সন্ত্রাস, ইমু হ্যাকার আটক এবং দেশি-বিদেশি অস্ত্র উদ্ধার অভিযানেও সফল হয়েছেন তিনি। যোগদানের পরপরই বাঘা থানাকে দালালমুক্ত ও মাদকমুক্ত থানা হিসেবে ঘোষণা দেন সাজ্জাদ হোসেন। এরই মধ্যে মাদক কারবারি, সেবনকারী সহ হ্যাকার দের মনে আতঙ্কের সৃষ্টি করেছেন তিনি।

তার ব্যতিক্রমী আরও উদ্যোগ হলো- থানায় মামলার ছোট ছোট অপরাধ স্থানীয়ভাবে দুপক্ষের শালিশের মাধ্যমে নিষ্পত্তি, উপজেলার মধ্য ২টি পৌরসভা ও ৭টি ইউনিয়নের প্রতিটি ওয়ার্ডে কমিউনিটি পুলিশিং সভা, বিট পুলিশিং সভা সহ সন্ত্রাস,মাদক, হ্যাকিং, ইভটিজিং , বাল্যবিবাহ, নারী ও শিশু নির্যাতন বিরোধী বিট পুলিশিং সমাবেশ, আইনশৃঙ্খলা স্বাভাবিক রাখতে প্রত্যন্ত এলাকায় পাহারা জোরদার করেছেন। এছাড়াও প্রতি শুক্রবার জুমা নামাজের পূর্বে মসজিদের মুসল্লিদের সঙ্গেমাদক নির্মূলে আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় এবং পারস্পরিক সুসম্পর্ক বজায় রাখতে আলোচনা করে আসছেন।

এসব সমাবেশে বক্তব্যকালে ওসি সাজ্জাদ হোসেন বলেন, ‘মুজিববর্ষের অঙ্গীকার পুলিশ হবে জনতার’- এই স্লোগানে তিনি জনগণের খুব কাছাকাছি যেতে চান। জাতির জনকের স্বপ্ন বাস্তবায়নে সকলে মিলে কাজ করে দেশকে সোনার বাংলা গড়ার দৃঢ় প্রত্যয়ী তিনি। এরই ধারাবাহিকতায় বাঘা থানাকে একটি সুসজ্জিত, সু-শৃঙ্খল ও সেবামূলক প্রতিষ্ঠান হিসেবে গড়ে তোলাই লক্ষ্য কাজ করছেন ওসি সাজ্জাদ হোসেন সাজু।

বাঘা থানা পুলিশ কর্তৃক আয়োজিত গত ২৯ সেপ্টেম্বর মনিগ্রাম ইউনিয়নের বিনোদপুর স্কুল মাঠে বিট পুলিশিং সমাবেশে প্রায় ৫ হাজার জনসাধারণ উপস্থিত করেছিলেন তার মনরম ব্যবহারে। সেই দিন জেলা পুলিশ সুপার এবিএম মাসুদ হোসেন বিপিএম (বার)কে প্রধান অতিথির আসনে রেখে বিশাল বিট পুলিশিং সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয় সাজ্জাদ হোসেন এর নেতৃত্বে।

এ ব্যাপারে বাঘা থানার অফিসার ইনচার্জ মো,সাজ্জাদ হোসেন বলেন, আমি প্রথমেই আল্লাহ রাব্বুল আলামিনের দরবারে লাখো কোটি শুকরিয়া আদায় করছি। এই থানায় কর্মরত থাকা অবস্থায় কোনো সন্ত্রাসী, মাদক ব্যবসায়ী ও ইমু হ্যাকার থাকতে পারবে না। মাদকের সঙ্গে জীবনে কখনো আপস করিনি, আর করব না। তবে মাদক পুরোপুরি নির্মূল করতে সাংবাদিকসহ সকলের সহযোগিতা প্রয়োজন।

পুলিশ জনগণের সেবক ও বন্ধু উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন, সমাজ থেকে সন্ত্রাস-জঙ্গিবাদসহ সকল অপকর্ম দূর করতে আমাদের সকলকে একযোগে কাজ করতে হবে। এরই মধ্য দিয়ে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা বাস্তব রূপ পাবে।

ফেসবুকে সংবাদটি শেয়ার করুন




© All rights reserved © 2017 আলোকিত ভোরের বার্তা
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com