বৃহস্পতিবার, ২৮ জানুয়ারী ২০২১, ১০:২৮ পূর্বাহ্ন

সর্বশেষ আপডেট :
রানীশংকৈলে পৌর নির্বাচনে মেয়র ও কাউন্সিলর প্রার্থীদের প্রতীক বরাদ্দ বিজঙ্গিকরণ কার্যক্রম শুরু করেছে র‌্যাব ৫ বাগমারার গোয়ালকান্দি মির্জাপুর প্রবাসীর স্ত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টায় ব্যবসায়ীকে গণপিটুনি রাজশাহীর দুর্গাপুরে পুকুর খননের অভিযোগে একজনের কারাদণ্ড রাজশাহী জেলা পুলিশের মাসিক কল্যাণ সভা ও মাসিক অপরাধ পর্যালোচনা সভা অনুষ্ঠিত ] নাসিরনগরে স্বপ্নের যাত্রা মানব কল্যাণ সংগঠনের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীতে- চেয়ারম্যান রাফি রাজশাহী জেলার শ্রেষ্ঠ ওসি নির্বাচিত হলেন মোস্তাক আহম্মেদ কালিয়ায় ব্যাংক ম্যানেজারের বিরুদ্ধে ঋণ জ্বালিয়াতির অভিযোগ নাটোরের বনপাড়া পৌরসভায় ব্র্যাকের উদ্যোগে উন্নত মানের মৎস্য চাষের উপর সেমিনার অনুষ্ঠিত। ১নং ওয়ার্ডে শীতার্ত মানুষের মাঝে কম্বল বিতরণ করলেন মেয়র লিটন

দূর্গাপুর উপজেলা ছাত্রলীগের সম্পাদকের বিরুদ্ধে রাজনৈতিক প্রতিহিংসার নেপত্থে কারা

দূর্গাপুর উপজেলা ছাত্রলীগের সম্পাদকের বিরুদ্ধে রাজনৈতিক প্রতিহিংসার নেপত্থে কারা

নিজস্ব প্রতিবেদক : রাজশাহীর দূর্গাপুর উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আতিকুর রহমান আতিকের ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে বিভিন্ন ভাবে যড়যন্ত্রের যেনো শেষ নেই।

গত তারিখ ৩১ জুলায় ২০১৮ ইং রাজশাহী জেলা ছাত্রলীগের অধিনে সভাপতি সাজেদুর রহমান মিঠু ও আতিকে সম্পাদক নির্বাচিত করে দূর্গাপুর উপজেলা শাখা ছাত্রলীগের কমিটি অনুমোদন হয়। সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হওয়ার পর থেকে একটি প্রতীপক্ষ প্রতিহিংসা মূলক যড়যন্ত্র করেই চলেছে। ছাত্রলীগ নেতা আতিকের বিরুদ্ধে এসব যড়যন্ত্র কারিরা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগে অনুপ্রবেশ কারি। অতিতে জামাত-শিবির ও বিএনপির রাজনিতিতে পদধারী সক্রিয় নেতা ছিলেন। আ.লীগ ক্ষমতায় আসার পরে খলোশ বদল করে আ.লীগের অঙ্গ সংগঠনে অনুপ্রবেশ করে দলের নেতা কর্মীদের বিরুদ্ধে প্রতিহিংসার রাজনিতি শুরু করে বিভ্রান্ত সিষ্টি করছে বলে অভিযোগ দূর্গাপুর উপজেলা ছাত্রলীগের নেতা কর্মীদের।

গত ১১ জানুয়ারি রোববার রাজশাহীতে কাউন্টার এক সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে উপস্থিত গনমাধ্যম কর্মীদের কাছে ছাত্রলীগ নেতা আতিকের বিরুদ্ধে রাজনৈতিক প্রতিহিংসা মূলক চাঁদাবাজি, টাকা আত্নসাতসহ বিভিন্ন মিথ্যা অভিযোগ তুলে গত বৃহস্পতিবার সকালে দুর্গাপুর প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে করেন। অভিযোগ কারি যে তিনজন যুবলীগে অনুপ্রবেশ কারি ও মাদক আশক্ত যুবলীগের ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক আলামিন। আরিফুল ইসলাম ও মুকুল হোসেন অতিতে জামাত-শিবির ও বিএনপি থেকে আ.লীগসহ অঙ্গ সংগঠনে অনুপ্রবেশ কারি বলে দাবি করেন ছাত্রলীগের নেতা কর্মীরা।

সংবাদ সম্মেলনে ছাত্রলীগের নেতা কর্মীরা বক্তব্যে আরো জানান, উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আতিকুর রহমান আতিকের পরিবার জন্মলগনো থেকে আ.লীগের রাজনিতির সাথে জড়িত। জামাত-বিএনপি সরকারের সময় নির্যাতনের শিকার হয়েছে এ ছাত্রলীগ নেতা আতিক। উপজেলা জুড়ে ব্যপক জনপ্রিয় তরুন প্রজন্মের ছাত্রনেতা আতিক। আতিক যোগ্য সাধারণ সম্পাদক হিসাবে নির্বাচিত হওয়ার পরে দলে অনুপ্রবেশ কারিরা দূর্গাপুর বাজারে আধিপত্ত বিস্তার ও প্রভাব খাটাতে গিয়ে বার বার ব্যর্থ হয়েছে। এ জন্য নতুন করে যড়যন্ত্র মূলক ছাত্রলীগ নেতা অতিকের বিরুদ্ধে। এসব অভিযোগের কোন সুনিদৃষ্ট প্রমান নেই। এছাড়া অর্থ নৈতিক বিষয় অভিযোগ থাকলে অর্থ ফেরত চাওয়ার কথা। কিন্তুু অভিযোগ করারিরা শুধু পদ থেকে বহিস্কারের সরাসরি দাবি করেন। এতে বোঝা যায় আতিকের ছাত্রলীগের সম্পাদক পদ কাল হয়ে গেছে প্রতিপক্ষের কাছে।

সংবাদ সম্মেলনে ছাত্রলীগের সম্পাদক আতিক বক্তব্যে আরো বলেন, অভিযোগ কারিদের মধ্যে আলামিন কিছুদিন আগে চাঁদাবাজি করতে গিয়ে মামলায় কারাগারে থেকে ছাড়া পায়। সে মাদক আশক্ত ও উপজেলা যুবলীগের অনুপ্রবেশ কারি। অর্থের বিনিময় ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক পদ বাগিয়ে। পদে আসার পরেই বিভিন্ন স্থানে চাঁদাবাজি করে। এলাকায় চাঁদাবাজ নামে পরিচিত সে।
মূলত যে তিনজন ব্যক্তি আমার নামে মিথ্যা সংবাদ সম্মেলন করে তারা তাদের সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে অনেকটা পরিষ্কার করে দিয়েছে যে স্যতি অভিযোগ করে তারা তাদের অধিকার আদায় না করে কিছু পদ-পদবী হারানো ও লবিং গ্রুপিং করছে। এসবের পেছনে ইন্ধনদাতা জামাত বিএনপির অর্থে।

আরো বলেন, আমার বিপক্ষে যেটা ঘটেছে সেটা মূলত দুর্গাপুর রাজনীতির গ্রুপিং হওয়ার কারণে তাদের গ্রুপে সংযুক্ত না থাকার কারণে রাজনৈতিকভাবে সম্মান ক্ষুন্ন করার জন্য এই জামাত-বিএনপি ও শিবির নেতাদের এ নোংরা চক্রান্তের তীব্র প্রতিবাদ ও নিন্দা জানায়। আগামীতে প্রমান ছাড়া এমন মিথ্যা অভিযোগ কারিদের বিরুদ্ধে দাঁত ভাঙ্গা জবাব দেবে উপজেলা ছাত্রলীগ।

এ বিষয়ে রাজশাহী জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক বলেন, আতিক ছাত্রলীগের নির্যাতিত নেতা। জামাত-বিএনপি জোটের সময় রক্ত দিয়েছে ও নির্যাতনের শিকার হয়েছে আতিকের পরিবার। তার বিরুদ্ধে যে সব অভিযোগ উঠেছে তা রাজনৈতিক প্রতিহিংসা মূলক। এসবের পেছনে দলের অনুপ্রবেশ কারিরা সম্পৃক্ত রয়েছে। এসব অনু প্রবেশ কারিদের সনাক্ত করে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। অনুপ্রবেশ কারি কিছু ছাত্রলীগ হয়ে দলের মধ্যে বিভ্রান্ত সিষ্টি করছে বলে জানান।

নিউজটি শেয়ার করুন...

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2018-2020  Bhorarbatra.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com