রবিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১০:০১ অপরাহ্ন

সর্বশেষ আপডেট :
রাণীশংকৈলে সদ্য প্রয়াত আ’লীগ নেতার স্মরণে মিলাদ ও শোক সভা অনুষ্ঠিত লালপুরে তোহিদুল ইসলাম বাঘার গনসংযোগ ও উঠান বৈঠক পুলিশে চাকুরী নিতে টাকা লাগবে না যোগ্যরা এমনি হবে : ওসি আলম রানীশংকৈলে প্রেম করে বিয়ে করার কারনে জামাইকে গাছের সঙ্গে বেঁধে নির্যাতন-মেযের মা গ্রেফতার বাগমারায় যুব মহিলা লীগের প্রচার মিছিল ও পথসভা রানীশংকৈলে ৮ বছর ধরে মুক্তিযোদ্ধার ভাতা বন্ধ তিতাসের কলাকান্দি ইউনিয়নবাসীর সেবক হতে চাই- চেয়ারম্যান পদ-প্রার্থী মো.ইব্রাহিম সরকার ক্ষুধা ও দারিদ্র মুক্ত দেশ গড়তে শেখ হাসিনা নিরলসভাবে কাজ করছেণ খাদ্যমন্ত্রী মোহনপুরের ঘাসিগ্রাম ইউপি নির্বাচনে মাঠে নেমেছেন সম্ভাব্য প্রার্থীরা ইউএনও যখন শিক্ষক…

বেহাল দশা আত্রাইয়ের আহসানগঞ্জ হাটের প্রবেশের রাস্তা,দৃষ্টি নেই কর্তৃপক্ষের

বেহাল দশা আত্রাইয়ের আহসানগঞ্জ হাটের প্রবেশের রাস্তা,দৃষ্টি নেই কর্তৃপক্ষের

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ নওগাঁ জেলার আত্রাই উপজেলায় অবস্থিত উত্তর বঙ্গের সবচেয়ে বড় সাপ্তাহিক আহসানগঞ্জ হাট।আত্রাই রাজশাহী মহাসড়কের পাশে ঐতিহ্য বাহি আহসানগঞ্জ হাট।

হাটে প্রবেশের প্রধান রাস্তায় অল্প বৃষ্টি হলেই পানি জমে যায়। পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থাও নেই। এরমধ্যে সৃষ্টি হয়েছে ছোট ও বড় গর্তের। রাস্তার কারণে মালবাহী গাড়ী হাটে ঢুকতে পারে না। এতে করে জনগণ ও কৃষক তাদের উৎপাদিত পণ্য হাটে সময় মত এনে বিক্রি করতে না পারায় গুনতে হচ্ছে লোকসান। একাধিক বার এনিয়ে কথা হলেও তবু দৃষ্টি নেই কর্তৃপক্ষের।

জানা গেছে, জাতীয় মহাসড়ক ছাড়াও আরো দুইটি রাস্তা আহসানগঞ্জ হাটের সাথে যুক্ত । রাস্তা গুলো হলো- আহসানগঞ্জ টু মান্দা,আহসানগঞ্জ টু নাটোর হয়ে ঢাকা। রাস্তার মধ্যে আত্রাই রাজশাহী মহাসড়কের সাথে হাটের পশ্চিম দিকের মূল প্রবেশের রাস্তা বেহাল দশায় রয়েছে।

সচেতন মহল বলছে, ঐতিহ্যবাহী এ হাটের মূল রাস্তার পাশে কিছু ব্যবসা প্রতিষ্ঠান গড়ে উঠায় ও পানি নিষ্কাশনের ব্যবস্থা না থাকায় অল্প বৃষ্টিতে চলাচলে অনুপযোগী হয়ে উঠে। এছাড়া বড় বড় গর্ত সৃষ্টি হওয়ায় প্রতিনিয়ত সমস্যায় পড়তে হচ্ছে ব্যবসায়ী সহ কৃষকদের । হাটে সময় মত পণ্য না নিয়ে আসতে পারায় লোকসান গুনতে হচ্ছে কৃষকদের।

উল্লেখ্য, কৃষি অধিষ্ঠিত এলাকার কৃষকের উৎপাদিত সবজী ও অন্যান্য কৃষি পণ্য,গরু,ছাগল থেকে আসবাবপত্র কেনাবেচা হয় প্রতি সপ্তাহের বৃহস্পতিবারে।
অত্র জেলা সহ পাশের জেলা উপজেলার মালামাল বিক্রির একমাত্র আহসানগঞ্জ হাট। সব ধরনের সবজী ও কৃষি পণ্য সরাসরি কৃষকের নিকট থেকে অপেক্ষাকৃত কম দামে কেনার জন্য দূর-দুরান্তের ক্রেতারা আহসানগঞ্জ হাটে আসে।

আর কৃষকরা তাদের কষ্টার্জিত এসকল পণ্যর ন্যায্য মূল্য পাওয়া আসায় হাটে নিয়ে আসে। এখান থেকে প্রতি হাটবারে পটল, করলা, শসা, কাঁচা মরিচ, পেঁপে বরবটি, ঢেঁরশ, আলু কচু, বেগুন, সবজী ও বিভিন্ন ধরনের শাক সহ গরু পাট,ভুট্টা, গম,সরিষা,পিঁয়াজ নিয়ে বৃহস্পতিবার হাট বারে ৩০/৩৫ ট্রাক লোড হয়ে রাজধানী সহ দেশের বিভিন্ন প্রান্তে যায়।

এখানকার কৃষকের উৎপাদিত শাক-সবজী ও অন্যান্য পণ্যের দেশের বিভিন্ন প্রান্তে চাহিদা থাকায় ও আহসানগঞ্জ হাট মহাসড়কের পাশে হওয়ায় পরিবহন খরচ কম হওয়ায় পাইকারের আনাগোনা বেশি। প্রতি বছর হাট ইজারা দিয়ে নওগাঁর সব হাটের মধ্যে এখান থেকে বেশী রাজস্ব আদায় করে সরকার।

নিউজটি শেয়ার করুন...

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

বিজ্ঞাপন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2018-2020  Bhorarbatra.Com
Desing & Developed BY ThemesBazar.Com